নিজেই গাড়ি চালিয়ে যুবরাজকে বাসভবনে নিয়ে গেলেন ইমরান খান | sampadona bangla news
বুধবার , ২৪ জুলাই ২০১৯

নিজেই গাড়ি চালিয়ে যুবরাজকে বাসভবনে নিয়ে গেলেন ইমরান খান

সম্পাদনা অনলাইন : দুই দিনের সফরে সৌদি যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমান রবিবার পাকিস্তানে পৌঁছেছেন। যুবরাজকে খুশি করতে পাকিস্তানের আয়োজনের কমতি নেই। বিমানবন্দরে পৌঁছানোর পর সালমানকে বহনকারী গাড়ি নিজেই চালিয়ে বাসভবনে নিয়ে যান পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান।

যুবরাজের এই সফরে পাকিস্তান ও সৌদি আরবের মধ্যে ১০ বিলিয়ন ডলারের বিনিয়োগ চুক্তি স্বাক্ষরিত হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

শনিবার সৌদি যুবরাজের পাকিস্তান সফরের কথা ছিল। কিন্তু হুট করে একদিন তা পেছানো হয়। তবে কি কারণে একদিন যুবরাজের সফর পেছানো হয় তা নিয়ে বিস্তারিত বলা হয়নি।

তবে আল-জাজিরার খবরে বলা হয়েছে, কাশ্মীরের পুলওয়ামায় হামলার জেরে একদিন যুবরাজের সফর পেছানো হয়।

গতকাল রবিবার রাতে পাকিস্তানের রাওয়ালপিন্ডির নূর খান বিমানঘাটিতে পৌঁছান সালমান। সেখানে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী অভ্যর্থনা জানান। বিমানবন্দরে তাকে লাল গালিচা সংবর্ধনা ও গান স্যালুট দেওয়া হয়।

সালমানের দুই দিনের সফর ঘিরে ইসলামাবাদ ও রাওয়ালপিন্ডি শহরে কড়া নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করা হয়েছে। ইসলামাবাদের মূল সড়কগুলোতে যান চলাচল সীমিত করে দেওয়া হয়েছে। বিভিন্ন জায়গায় বসানো হয়েছে হাজারখানেক পুলিশ চৌকি।

নিজেই গাড়ি চালিয়ে যুবরাজকে বাসভবনে নিয়ে গেলেন ইমরান খানএছাড়া নিষিদ্ধ করা হয়েছে শহরের ওপর দিয়ে বিমান চলাচল।এছাড়া শহরটির বড় অংশ জুড়ে বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে মোবাইল ফোনের নেটওয়ার্ক ও ইন্টারনেট পরিষেবা। সৌদি যুবরাজ সফর উপলক্ষে সোমবার ঘোষণা করা হয়েছে সাধারণ ছুটি।

যুবরাজের এই দুই দিনের সফরে সঙ্গী হয়েছেন প্রভাবশালী ব্যবসায়ী এবং গুরুত্বপূর্ণ কয়েকজন মন্ত্রী। পাকিস্তানে পৌঁছানোর কয়েক ঘণ্টার মধ্যে দুই হাজার কোটি ডলারের বিনিয়োগ চুক্তি সম্পন্ন হয়েছে বলে খবরে জানানো হয়েছে।

পাকিস্তানের সেনাপ্রধান কামার জাভেদ বাজওয়া এবং প্রেসিডেন্ট আরিফ আলভির সঙ্গে সাক্ষাৎ করার কথা রয়েছে সালমানের।

পাকিস্তান সফর শেষে ভারতে যাবেন সালমান। ইন্দোনেশিয়া ও মালয়েশিয়া যাওয়ার কথা থাকলেও শনিবার কোনও কারণ না দেখিয়েই তা বাতিল করা হয়। ভারত থেকে মোহাম্মদ বিন সালমান দুই দিনের চীন সফর শেষে দেশে ফিরবেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*